মজাদার সন্দেশ তৈরির রেসিপি

সন্দেশ দুধের ছানা দিয়ে তৈরি একধরণের জনপ্রিয় মজাদার মিষ্টান্ন। খাদ্য উপাদানের দিক থেকে এটি একটি পুষ্টিকর খাবার। ছানার সাথে চিনি বা গুড় মিশিয়ে ছাঁচে ফেলে সন্দেশ প্রস্তুত করা হয়ে থাকে। বাঙালির উৎসব আয়োজনে এই মজাদার খাবারটির ব্যবহার অনেক প্রাচীন কাল থেকেই হয়ে আসছে। বাংলাদেশের নাটোর জেলার সন্দেশ বা কাঁচাগোল্লা এবং মুক্তাগাছার মণ্ডা জনপ্রিয় একটি মিষ্টান্ন। আজ আপনাদের জন্য থাকছে  মজাদার সন্দেশ তৈরির রেসিপি –

সন্দেশ তৈরির রেসিপি

সন্দেশ তৈরির রেসিপি

উপকরণঃ সম্মানিত পাঠক এক নজরে দেখে নিন কি কি উপকরণ লাগবে আপনার পছন্দের সন্দেশ তৈরি করতে।

  • দুধ ১ লিটার
  • চিনি আধা কেজি
  • এলাচি গুড়া ১ চা চামচ
  • ঘি ১ টেবিল চামচ
  • বিভিন্ন ডিজাইনের ছাচ (যদি আপনি ডিজাইন করে বানাতে চান)

সন্দেশ তৈরির  প্রণালীঃ

  • একটা নন্ স্টিক প্যানে করে দুধ টা চুলায় বসান এবং অনবরত নাড়তে থাকুন যতক্ষন না দুধ টা শুকিয়ে ঘন হয়ে কাই বা খামির এর মতো হয়। যখন ঘন হয়ে আসবে তখন আগুন খুব কম করে দিতে হবে।
  • মৃদু আঁচে দুধ নেড়ে ঘন করে নিতে হবে। এরপর চিনি দিয়ে নাড়তে থাকুন। ঘন হয়ে গেলে মাঝে মাঝে পাত্রটি চুলা থেকে নামিয়ে নাড়ুন এবং ঠান্ডা হলে আবার চুলায় দিণ।
  • খুব ঘন হযে গেলে ঘি দিয়ে দিন। যখন আঠাআঠা হয়ে আসবে তখন খুব তাড়াতাড়ি পরিস্কার হাতের তলায় একটু ঘি মেখে নিয়ে বা পানিতে হাত ধুয়ে ভেজা হাতে সন্দেশের ছাঁচে কিংবা হাতেরতালুতে চেপে সন্দেশ তৈরি করে নিন।
  • একটু রেখে দিলে সন্দেশ ঠান্ডা হয়ে শক্ত হয়ে যাবে। হয়ে গেলো দুধের সন্দেশ। তখন এখন পরিবেশন করুন। এক লিটার দুধ দিয়ে ২৩-২৪ টা সন্দেশ হবে।

খেয়াল রাখবেন যাতে নিচে পুড়ে না যায়। যখন ঘন হয়ে আসবে তখন আগুন খুব কম করে দিতে হবে। কারন একটুও যদি নিচে লেগে যায় তাইলে কালার টা নস্ট হয়ে যাবে। 

টিপসঃ সবসময় আপনার প্রয়োজনীয় আসবার পত্র পরিস্কার পরিছন্ন রাখবেন এবং যে কোন ধরনের খাবার তৈরি করার এবং পরিবেশনের আগে আপনার হাত সাবান দিয়ে পরিস্কার করে ধুয়ে নিবেন, এতে আপনি এবং আপনার পরিবারের সবাই রোগ মুক্ত থাকবেন। পরিশেষে ভাল থাকুন এবং পরিমিত পুষ্টিকর খাবার খান এই কামনায় শেষ করছি।

Leave a Reply