মূলা শাকের উপকারিতা এবং পুষ্টিগুণ

মূলা শাক স্বাদে বেশি মজার না হলেও এর রয়েছে অসাধারণ স্বাস্থ্য উপকারিতা। অনেকেই মূলা শাক  একটু তিতা তিতা লাগে বলে খেতে চান না। আপনি হয়তোবা কখনো চিন্তাও করেননি তিক্ত স্বাদের এই শাকের রয়েছে এত গুণাবলী। সম্মানিত পাঠক আসুন এবার জেনে নেই মূলা শাকের উপকারিতা সম্বন্ধে বিস্তারিত ভাবে-

মূলা শাক

মূলা শাক

  • মুলা শাকে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি পাওয়া যায় যা অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট হিসেবে কাজ করে দেহের রোগ প্রতিরোধ করে। এছাড়াও এতে মলিবডেনাম, পটাসিয়াম, ভিটামিন বি কমপ্লেক্স সমৃদ্ধ ফলিক এসিড রয়েছে।
  • মূলা শাক অ্যান্টিক্যান্সার উপাদান সমৃদ্ধ সবজি, মুলা শাক গ্রহণ করলে অ্যালার্জি ও হৃদপিণ্ডের বিভিন্ন রোগ থেকে সুরক্ষা পাওয়া সম্ভব।
  • মুলা শাক আমাদের দেহ থেকে ফ্রি র‍্যাডিকেল বা মুক্তমূলক পরিষ্কারক হিসেবে কাজ করে। মুলা শাকের উপকারী উপাদান সমূহ শরীরের অ্যান্টি-অক্সিডেন্টকে সক্রিয়ভাবে কাজ করতে সাহয্য করে। ফলে বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সারের আক্রমণ থেকে এটি শরীরকে রক্ষা করে থাকে।
  • মুলা শাকে বিদ্যমান ফাইবার দেহের ব্লাড সুগারের পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

সতর্কতা
মুলা শাকে প্রচুর পরিমাণে অক্সালেট রয়েছে। অধিক পরিমাণে মুলা শাক গ্রহণ করার ফলে অক্সালেট জমাট বেধে শরীরে বিভিন্ন সমস্যার সৃষ্টি করতে পারে। এছাড়া ক্যালসিয়াম শোষণে অক্সালেট বাধা সৃষ্টি করে থাকে। যারা কিডনি বা পিত্তথলির বিভিন্ন সমস্যায় ভুগছেন তাদের মুলা শাক এড়িয়ে চলা উচিৎ।

Leave a Reply